মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১২ August ২০১৫

নিয়ন্ত্রক'র বাণী

নিয়ন্ত্রক'র বাণী

তথ্যপ্রযুক্তির অবলম্বন ও ব্যবহারের সাথে জাতীয় অর্থনৈতিক ও মানবসম্পদ উন্নয়নের সম্পর্ক দিন দিন বাড়ছে। বিশ্ব অর্থনীতিতে অংশগ্রহণ ও তথ্যপ্রযুক্তির সর্বোত্তম ব্যবহারের মাধ্যমে নাগরিকদের উন্নত সেবা প্রদানের জন্য এবং প্রতিষ্ঠান ও মার্কেটগুলোকে আধুনিকায়নের জন্য বিভিন্ন দেশ তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার বাড়াচ্ছে। অন্যান্য উন্নয়নশীল দেশের মত বাংলাদেশ অর্থনৈতিক মুক্তির হাতিয়ার ও দারিদ্র দূরীকরণ এবং মানব উন্নয়নের জন্য অকল্পনীয় সক্ষমতাদানকারী হিসাবে  তথ্যপ্রযুক্তির প্রয়োজনীয়তাকে বর্তমান সরকার রূপকল্প ২০২১ ঘোষণার মধ্য দিয়ে এর স্বীকৃতি প্রদান করেছে । অর্থনৈতিক সুযোগের বহুমূখীকরণ ও দক্ষ শাসনের মাধ্যমে জনগণের সেবা বৃদ্ধি, কর্মসংস্থান বৃদ্ধি এবং তথ্যে  অবাধ প্রবেশাধিকারের মাধ্যমে জনগণের অধিক কল্যাণকারী হিসাবে তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেছে। অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশ সরকারও তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির আইনগত বৈধতা ও নিরাপত্তা প্রদানের জন্য তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (সংশোধিত) আইন, ২০০৬ পাস করেছে।

২০১১ সালে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (সংশোধিত) আইন, ২০০৬ এর দ্বারা ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর সার্টিফিকেট প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয়। ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর সার্টিফিকেট প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় (সিসিএ) হলো ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের অধীন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের একটি সংস্থা। এ কার্যালয়ের মাধ্যমে ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর প্রবর্তনের কার্যক্রমসহ সাইবার নিরাপদ বিষয়ক ও সাইবার অপরাধের তদন্ত ও এর বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে। ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর প্রবর্তনের লক্ষ্যে ২০০৯ সাল থেকে ৩ বছর মেয়াদী একটি কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হয়।

এছাড়াও ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষরের প্রযোগিক ক্ষেত্র ও এর প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে জনসচেতনতা বাড়ানোর জন্য দেশের বিভিন্ন জায়গায় সেমিনারের আয়োজন করা হচ্ছে। সকল সরকারী অফিসে ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর প্রবর্তনের লক্ষ্যে ইতোমধ্যে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়াও ২০,০০০ সরকারী কর্মকর্তাদের মধ্যে বিনামূল্যে ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর সার্টিফিকেট বিতরণের কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ইলেক্ট্রনিক স্বাক্ষর সার্টিফিকেট প্রদানকারী কর্তৃপক্ষের নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের একটি সংস্থা হিসাবে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির নিরাপদ ব্যবহার নিশ্চিতকরণে দক্ষতার সহিত কাজ করে যাচ্ছে।

আমি আশা প্রকাশ করি, ভবিষ্যতে এই সংস্থা সরকারের রুপকল্প: ২০২১ বাস্তবায়নে ও ই-গভ:মেন্টের উন্নয়নে  এবং সাইবার নিরাপত্তা প্রদানে গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালন করবে।                       


Share with :